SLIDER

Navigation-Menus (Do Not Edit Here!)

বেশি যৌনতায় বিতৃষ্ণা চলে আসে

বিশেষজ্ঞরা সুস্থ দেহ ও মনের জন্যে যৌনতাকে অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ প্রয়োজন বলে মত দিয়েছেন। স্বাস্থ্যকর সেক্স মানুষকে সুন্দর জীবন দান করতে পারে। কিন্তু অতিরিক্ত কোনো কিছুই ভালো নয় বলে মনে করেন বোদ্ধারা। তারই প্রতিফলন ঘটেছে নতুন এক গবেষণায়। এতে বলা হয়, সুখী ও আনন্দময় জীবন পেতে যৌনতা গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করে।
তবে অতিরিক্ত যৌনকর্মের ফলে দীর্ঘমেয়াদে এ কাজের প্রতি বিতৃষ্ণা চলে আসতে পারে।
পিটার্সবার্গের কার্নেগি মেলন ইউনিভার্সিটির এক দল গবেষক গুটিকয়েক জুটিকে নিয়ে তাদের গবেষণা পরিচালনা করেন। গবেষকরা জুটিদের তিন মাসের সময় ধরিয়ে দেন। বলা হয়, এ সময় তারা যেন আগের চেয়ে বেশি বেশি যৌনকর্মে মিলিত হন। দেখা যায়, এই সময়ের মধ্যে তাদের যৌনতার প্রতি অনিচ্ছা চলে এসেছে। একবার সেক্স উপভোগের চেয়ে বিতৃষ্ণা চলে আসার হার অনেক বেশি ছিল।
প্রধান গবেষক প্রফেসর জর্জ লোয়েনস্টেইন জানান, বেশি সেক্সের কারণে জুটিদের এ কাজে আগ্রহ তো বাড়েনি, বরং আশঙ্কাজনক হারে কমতে শুরু করেছে। তাই সময়ের ব্যবধান রেখে যৌন আকাঙ্ক্ষা বৃদ্ধির মাধ্যমে যখন দম্পতিরা সেক্স করেন, তখন তা দারুণ উপভোগ্য হয়ে ওঠে।
এ গবেষণায় বিজ্ঞানীরা ৩৫-৬৫ বছর বয়সী দম্পতিদের বেছে নেন। তাদের দুটো দলে ভাগ করে তিন মাসের সময় বেঁধে দেন। একটি দলকে তাদের স্বাভাবিক যৌনজীবন নিয়ে বিশেষ পরামর্শ দেওয়া হয়। অপর দলকে দ্বিগুণ পরিমাণে সেক্স করতে বলা হয়।
পরে অংশগ্রহণকারীরা তাদের স্বাস্থ্যগত অবস্থা, সুখের মাত্রা এবং যৌনতার নানা বিষয় নিয়ে মন্তব্য করেন। দ্বিতীয় দলের দম্পতিরা যৌনতার প্রতি অনিচ্ছা চলে আসার কথা বলেন।

গবেষকরা আশা করেন, দম্পতিরা তাদের যৌনজীবনে সুখের মাত্রা ক্রমশ বৃদ্ধি করতে সময়ের ব্যবধান বা সেক্সের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখবেন। এতে দীর্ঘমেয়াদে যৌনজীবন সুখকর হয়ে উঠবে।

Pages